হোমটিভি

এবার পুজোয় কী করছেন 'খোকাবাবু'র তরী ?

  | October 16, 2018 12:04 IST
Trina Saha

তৄণা সাহা

পুজোয় নিজের প্ল্যান থেকে শুরু করে ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে এনডিটিভি বাংলার সঙ্গে খোলামেলা আলোচনায় টলিউডের অন্যতম গ্ল্যামার গার্ল তৄণা সাহা ৷

এবার পুজোয় কী করছেন 'খোকাবাবু'র তরী ? 

 পুজোয় নিজের প্ল্যান থেকে শুরু করে ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে এনডিটিভি বাংলার সঙ্গে খোলামেলা আলোচনায় টলিউডের অন্যতম গ্ল্যামার গার্ল তৄণা সাহা ৷

উঠতি টলিউড তারকাদের মধ্যে অন্যতম গ্ল্যামার গার্ল তৄণা সাহা ৷ 'খোকাবাবু' সিরিয়ালে তার চরিত্র তরী দারুন জনপ্রিয়তা পায় ৷ সেই শুরু ৷ তারপর থেকে আর পিছন
ফিরে তাকাতে হয়নি ৷ একের পর এক সিরিয়াল ও শর্ট ফিল্মে ব্যস্ত থাকতে দেখা গেছে টেলি মিডিয়ার এই গ্ল্যামার গার্লকে ৷ এবার পুজোয় নিজের প্ল্যান থেকে শুরু
করে ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে এনডিটিভি বাংলার সঙ্গে খোলামেলা কথা বলেছে তৄণা সাহা ৷   

প্রশ্ন : সারা বছরই তো শুটিংয়ের ব্যস্ততা থাকে তাই পুজোর সময় কী প্ল্যান? 


উত্তর: সারা বছর শুটিং বা যে কাজই করি না কেন পুজোর সময় কোনও কাজ না রাখাই প্ল্যান ৷ এমনিতেই আমি কোনওদিন কোনও প্ল্যান করি না  ৷ আপনা থেকেই
বন্ধু বা পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে হঠাত প্ল্যানই সবচেয়ে ভালো বলে মনে করি ৷ কারণ আগে থাকতে কিছু ভেবে রাখার পর সেটা ভেস্তে গেলে খারাপ লাগে ৷

প্রশ্ন:  পুজোর খাওয়াদাওয়া, স্পেশাল মেনু কী ? কী খেতে ভালোবাস ? 

মেনু বলতে আমি সবকিছু খাই ৷ ভীষণ খেতে ভালোবাসি ৷ বিশেষ করে ডেজ়ার্ট, মিষ্টি, স্ট্রিট ফুড পুজোতে বিশেষ করে খাই ৷ বিরিয়ানি খেতে সবচেয়ে বেশি ভালোবাসি ৷
পুজো মানে নো ডায়েটিং ৷ পুজোর সময় ডায়েটিংয়ের কথা ভাবতেও পারি না ৷ এই সময় যেগুলো খেতে ভালোবাসি বা যেগুলো সবসময় পাওয়া যায় না সেগুলো বেশি
করে খাই ৷ পুজোতে কোনও নির্দিষ্ট মেনু নেই ৷ 

প্রশ্ন:  তাহলে অন্য সময় কি ডায়েট মেনে চল ?

উত্তর: (একটু হেসে) আমি ডায়েট একেবারেই মেনটেন করতে পারি না ৷ সাত দিনের জন্য ডায়েট প্ল্যান করলে তিন দিনের পর আর থাকতে পারি না ৷ চার দিনের দিন
সেটা নিজের জন্য বন্ধুদের জন্য ভেঙেই যায় ৷ তাই এটা নিয়ে বিশেষ ভাবি না ৷ যখন ভাবার সময় আসবে তখন ভাবব ৷ 

প্রশ্ন: পুজোর সাজ নিয়ে কিছু বল...

সাজগোজ খুব সিম্পল ও কমফোর্ট রাখতে চাই ৷ কারণ, পুজোয় অনেক ঘোরাঘুরি হয় ৷ অনেকক্ষণ বাইরে থাকি ৷ তাই যেটাতে কমফোর্ট ফিল করি সেরকমই থাকার
চেষ্টা করি ৷

প্রশ্ন: খোকবাবু টেলি সিরিয়ালে তরী ভীষণ জনপ্রিয় ক্যারেক্টার ৷ এরপর শর্ট ফিল্মও করছেন, বড় পর্দায় কবে দেখা যাবে বা এরকম কোনও ভাবনা আছে ? 

উত্তর: আমি খুব লাকি যে তরী খুব পপুলার ক্যারেক্টার হয়ে গেছে ৷ তবে তরী থেকে বেরোতে আমার সময় লাগছে ৷ জানি না ঠিক কবে বেরোতে পারব ৷ এর পর কেয়া
বলে একটা ক্যারেক্টার করেছি ৷ দুটো শর্ট ফিল্ম, একটা মিউজিক ভিডিও করেছি ৷ কিন্তু এখনও লোকে আমাকে তরী বলেই চেনে বা ডাকে ৷ তরীর পরের ভাবনা এখনও
কিছু ভাবিনি ৷ পুজোটা যাক ৷ পুজোয় কাজের ব্যাপারে কিছু ভাবতেও চাই না ৷ পুজোর পরে ভালো কিছুতে হাতে দেব বলে আশা রাখছি ৷ সেইমতো আপডেট দিতে
থাকব আপনাদের ৷  

প্রশ্ন: টেলি সিরিয়ালের জনপ্রিয় ক্যারেক্টার হয়ে ওঠার জন্য কোনও স্যাক্রিফাইস ? 

উত্তর: কাজের জন্য একটু আধটু সবাইকেই স্যাক্রিফাইস করতে হয় ৷ বন্ধু বা পরিবার যাদের সঙ্গে আমার থাকার কথা ছিল আমিও হয়তো তাদের সঙ্গে থাকতে পারিনি
৷ তবে যাদের টাইম দিতে পারিনি তারাও আমাকে বোঝে ৷ তবে ক্যারিয়্যারের জন্য কিছু হারাতে হয়নি ৷ এবং হারাতে হবে না বলেই মনে করি ৷ 

প্রশ্ন: অভিনয় জগতে আগমন কীভাবে? 

উত্তর: আমি খুব লাকি ৷ হঠাত করে 'খোকাবাবু'তে আসা ৷ এবং সেটা ভীষণ পপুলারও হয়েছে ৷ আমার স্ট্রাগেলিং বলতে খোকাবাবুতে আসার পর ৷ কারণ, আমি
অভিনয় জানতাম না, ক্যামরা ফেসিং, তোতলামির সমস্যা ছিল ৷ তিন বছর দিল্লিতে থাকার পর বাংলা ঠিক করে বলতে পারতাম না ৷ তাই বিশাল কিছু স্ট্রাগল করে
অভিনয়ে আসিনি ৷ বরং জব পাওয়ার পর ড্র ব্যাকগুলো কাটিয়ে তোলার জন্য স্ট্রাগেল করতে হয়েছে ৷ 

প্রশ্ন: তিন বছর দিল্লিতে ছিলে, বড় হয়েছ কোথায় ? 

উত্তর: কলকাতাতেই জন্ম ও বড় হয়ে ওঠা ৷ গ্র্যাজুয়েশন পর্যন্ত কলকাতায় ছিলাম ৷ তারপর দিল্লিতে যাই হায়ার স্টাডিজের জন্য ৷ 

প্রশ্ন:অবসর সময়ে কী কর? 

উত্তর: অবসর সময়ে ফিল্ম দেখি ৷ এখন ওয়েব সিরিজের ট্রেন্ড ৷ তাই আমি বিভিন্ন ভাষার সিরিজ দেখি ৷ মোটিভেশনাল বা পজিটিভ বই পড়তেও পছন্দ করি ৷ বন্ধুদের
সঙ্গে আড্ডাও দিই ৷ অনেক সময় আবার অবসর সময়ে কিছু করি না ৷ শুধু শুয়ে থাকি ৷ 

প্রশ্ন: বিশেষ কোনও বন্ধু? 

উত্তর: আমার বিশেষ কোনও বন্ধু নেই ৷ সব বন্ধুই বিশেষ ৷ তোমরা যেটা বোঝাতে চাইছ সেটা বিয়ের পর আমার স্বামীই হবে ৷ তো সেটা যখন ঠিক হবে তখন সবাইকে
মন খুলে জানাব... ৷ 

প্রশ্ন: প্রতিষ্ঠিত হতে পরিবারের ভূমিকা কতখানি...

উত্তর: শুধু এই ফিল্ডে নয় আনার মনে হয় প্রতিটি ফিল্ডেই বাব মায়ের ভূমিকা থাকে ৷ বাবা মা ছেলেমেয়েদের লেখাপড়া শেখায় সাফল্য দেখতে ৷ সেটা ছেলে হোক বা
মেয়ে ৷ আমার মা বাবা চাননি আমি অভিনয় করি ৷ প্রথম দিকে তাঁরা আমাকে সাপোর্টও করেনি ৷ পরে যখন তারা দেখল আমি হয়তো ভালো কাজ করছি এবং এই
কাজটাকে ভালোবাসছি তখন তারা আমাকে সাপোর্ট করতে শুরু করল ৷ বাবা মায়ের সাপোর্ট ছাড়া তিন বছর হয়তো এই ফিল্ডে থাকা সম্ভব হত না ৷ তাই অনবরত
তাদের সাপোর্ট পাওয়ার জন্য নিজেকে লাকি বলে মনে হয় ৷

প্রশ্ন: কাজের জায়গায় পলিটিকস নিয়ে কী বলবে ?

উত্তর: পলিটিকস সব জায়গাতেই থাকে ৷ কেউ সেটাকে কীভাবে নিচ্ছে সেটা তার উপর নির্ভর করছে ৷ আমি এক্ষেত্রে ভীষণ নিউট্রাল ৷ কেউ হ্যান্ডেল করতে পারলে
ভালো ৷ না পারলেও ভাবার দরকার নেই ৷ কাজের প্রতি নিজেকে ৫০০শতাংশ দিতে হবে ৷ সব জায়গাতেই পলিটিকস আছে  ৷ শুধু এই ইন্ডাস্ট্রি বলে নয়, আমাদের
সবাইকেই কখনও না কখনও পলিটিকসের চাপের মুখে পড়তে হয় ৷ তাই মানিয়ে গুছিয়ে নিতে হয় ৷

প্রশ্ন: কর্মক্ষেত্রে যৌন হেনস্থার কথা হামেশাই শোনা যায়, তোমাকে কী কখনও এসব ফেস করতে হয়েছে ? 

উত্তর: আমি এখনও কোনও সেক্সুয়াল হ্যারাসমেন্টের স্বীকার হইনি ৷ কিন্তু যারা ফেস করছে, একেবারেই শেমফুল সেটা আমাদের ইন্ডাস্ট্রির  জন্য ৷  কয়েক জনের জন্য
ইন্ডাস্ট্রির বদনাম হচ্ছে ৷ ইন্ডাস্ট্রি তো অনেককে নিয়ে তৈরি ৷ তাই এর বদনাম হওয়া ঠিক নয় ৷ আমি এর বিরুদ্ধে ৷ যারা এটা ফেস করেছে আমি তাদের প্রত্যেকের
পাশে আছি ৷ লাকিলি আমাকে এসবের মুখোমুখি হতে হয়নি ৷ তবে সবাইকেই বলব কেয়ারফুল থাকতে ৷ এসব এড়াতে কোথায় যাচ্ছ, কাদের সঙ্গে মিশছ তা নিয়ে
মেয়েদের সজাগ থাকতে হবে ৷ যদি কারও সঙ্গে এরকম কিছু হয়ে থাকে তাহলে বলব চুপ না থেকে সবার আগে এর বিরুদ্ধে মুখ খোলা ও উপযুক্ত জায়গায় অভিযোগ
দায়ের করা দরকার ৷ 


বাংলা ভাষায় বিশ্বের সকল বিনোদনের আপডেটস তথা বাংলা সিনেমার খবর, বলিউডের খবর, হলিউডের খবর, সিনেমা রিভিউস, টেলিভিশনের খবর আর গসিপ জানতে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube
Advertisement
Advertisement
Listen to the latest songs, only on JioSaavn.com