হোম

ফিডিং বোতল, কচি পা, মাতৃত্ব জমিয়ে উপভোগ করছেন পরমেশ্বরী?

  | November 01, 2019 14:09 IST (কলকাতা)
Koneenika Banerjee

মেয়ে কোলে খুশি মা কনীনিকা

ভারী অবস্থা আসতেই ধারাবাহিক থেকে সরে দাঁড়ান 'অন্দরমহল'-এর প্রাণভোমরা কনীনিকা। ওই অবস্থাতেই যদিও অভিনয় করেন উইন্ডোজ প্রোডাকশনের ছবি 'মুখার্জিদার বউ'-এ। তারপর টানা বিরতি। এখন কেমন ছবি বাস্তবের পরমেশ্বরীর অন্দরমহলের?

মেগা ‘অন্দরমহল' চলত শুধু তাঁর জোরে। কীভাবে একজন সাধারণ মেয়ে অসাধারণ হয়ে উঠেছিল, জেদ-বুদ্ধি আর গানের জোরে দেখতে ভালোবাসতেন তথাকথিত শহুরে আধুনিকারাও। হয়ত মনে মনে অনেকেই হয়ে উঠতে চাইতেন পরমেশ্বরী। ততদিনে অভিনেত্রী কনীনিকা বন্দ্যোপাধ্যায়ও (Koneenika Banerjee) বাস্তব জীবনে থিতু। বিয়ে করেছেন প্রযোজক সুরজিৎ হরিকে। তারপর অন্তঃস্বত্ত্বা। ভারী অবস্থা আসতেই ধারাবাহিক থেকে সরে দাঁড়ান 'অন্দরমহল'-এর প্রাণভোমরা কনীনিকা। ওই অবস্থাতেই যদিও অভিনয় করেন উইন্ডোজ প্রোডাকশনের ছবি 'মুখার্জিদার বউ'-এ। তারপর টানা বিরতি। এখন কেমন ছবি বাস্তবের পরমেশ্বরীর অন্দরমহলের? কীভাবে উপভোগ করছেন মাতৃত্ব (Motherhood)? নিজের চোখেই দেখে নিন---    


Motherhood is indeed a bliss #mylilangel #mylife #thankyouuniverse

A post shared by Koneenica Banerjee (@koneenica_banerjee) on



সবাই বলেছিল, ছেলে হবে। তিনিও কি তাই-ই চেয়েছিলেন? সেই কথা নিয়ে কথা বলার সময় পেরিয়ে গেছে। কারণ, চলতি বছরের জুনে তিনি তুলতুলে একদলা ননীর মতো মেয়ের মা হয়ে বসেছেন। গোলাপি ফ্রকে ভালোবাসার ছাপ আঁকা জামায় সাজিয়েছেন মেয়েকে মনের মতো করে। 


তার আগে হয়েছে তাঁর সাধভক্ষণ। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অভিনেত্রী র্যাচেল হোয়াইট,  চৈতি ঘোষাল, পরিচালক নন্দিতা রায় সহ একঝাঁক তারকা উপস্থিত ছিলেন সেই অনুষ্ঠানে। যদিও সুরজিতের আগের পক্ষের ছেলে রয়েছে। কোনি কিন্তু দ্রোণের সঙ্গে বিয়ের আগেই দিব্যি ভাব জমিয়ে নিয়েছেন। ফলে, তিনি আপাতত এক ছেলে এক, এক মেয়ের মা! ঠিক যেভাবে অন্দরমহলে তিনি মা না হলেও পুরোপুরি মা হয়ে গেছিলেন আগের পক্ষের মেয়ে জুজু-র। অনেকেই বলেছেন, ধারাবাহিকের সেই মেয়েই বাস্তবে তাঁর কোলে এসেছে।

Bliss with you #thankyouuniverse

A post shared by Koneenica Banerjee (@koneenica_banerjee) on


জন্মের পর যদিও মেয়ের মুখে ইনস্টায় শেয়ার করেননি কোনি। সামনে এনেছিলেন লক্ষ্মীমন্ত দুটি ছোট্ট পায়ের ছবি। যাতে নজর না লাগে তার জন্য মেয়ের পায়ে বেঁধে দিয়েছিলেন কালো কার।


এই কচি হাতই এখন কোনির আশা-ভরসা। এই হাত ধরেই তিনি উড়াল দিতে যান স্বপ্নের দুনিয়ায়।


আর এই ফিডিং বোতল। সব মিলিয়ে কোনি খুশি। সারাক্ষণ তিনি ব্যস্ত মেয়ের দেখভালে। ঘরকন্নার কাজে। এভাবেই দুই হাতে একা সামলাচ্ছেন সুরজিতের সাজানো সংসার। তারই মধ্যে দুর্গা পুজোর বিচারক হয়েছেন। প্রদীপ জ্বালিয়ে ঘর সাজিয়ে নেটিজেনদের শুভ দীপাবলির শুভেচ্ছাও জানিয়েছেন কনীনিকা। কোনও কিছুতেই ক্লান্তি নেই। খামতি নেই। কারণ, পর্দার মতোই বাস্তবেও যে তিনি পরমেশ্বরী হয়ে উঠতে চান পাকাপাকিভাবে।


বাংলা ভাষায় বিশ্বের সকল বিনোদনের আপডেটস তথা বাংলা সিনেমার খবর, বলিউডের খবর, হলিউডের খবর, সিনেমা রিভিউস, টেলিভিশনের খবর আর গসিপ জানতে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube
Advertisement
Advertisement