হোমবলিউড

জন্মদিনে Brain Surgery-র ছবি সামনে আনলেন হৃতিকের মা

২০২০-তে এসে সাত বছর আগের সেই ভয়ঙ্কর স্মৃতি আরও একবার উস্কে দিলেন পিঙ্কি। আজ, হৃতিক রোশনের ৪৬ তম জন্মদিনে।

  | January 10, 2020 18:25 IST (New Delhi, India)
Hrithik Roshan

মাথায় অস্ত্রোপচারের পর হৃতিক (সৌজন্যে ইনস্টাগ্রাম)

Highlights

  • ২০১৩০য় 'ব্যাং ব্যাং' শুটে মাথায় চোট পান হৃতিক
  • মুম্বই হিন্দুজা হাসপাতালে অস্ত্রোপচার হয় তাঁর
  • "ডুগ্গুর অপারেশনের আগে আমি অজ্ঞান হয়ে গেছিলাম" জানান পিঙ্কি

২০১৩-র আতঙ্ক এখনও তাড়া করে ফিরছে Pinky Roshanকে। ২০১৩-য় Bang Bang-এর শুটে মাথায় মারাত্মক আঘাত পেয়েছিলেন Hrithik Roshan। যার জেরে মাথায়, কাঁধ, হাত পায়ের প্রচণ্ড ব্যথায় দীর্ঘদিন ভুগতে হয়েছে তাঁকে। পরে brain surgery করে সুস্থ হয়ে ওঠেন গ্রিক গড। ২০২০-তে এসে সাত বছর আগের সেই ভয়ঙ্কর স্মৃতি আরও একবার উস্কে দিলেন পিঙ্কি। আজ, হৃতিক রোশনের ৪৬ তম জন্মদিনে। সোশ্যালে হৃতিকের অপারেশনের পরের অবস্থার ছবি শেয়ার করে। মুম্বইয়ের হিন্দুজা হাসপাতালে অপারেশন হয়েছিল অভিনেতার।

এই ছবি শেয়ার করে পিঙ্কি জানান, সেদিন প্রচণ্ড অসহায় হয়ে পড়েছিলেন তিনি। মনের দিক থেকে ভীষণ ভেঙে গেছিলেন। সেদিন হৃতিক তাঁকে সাহস জুগিয়েছিল। মনের জোর এতটাই কমে গেছিল পিঙ্কির যে হৃতিক অপারেশন থিয়েটারে যাওয়ার সময় তিনি ভয়ে অজ্ঞান হয়ে গেছিলেন। বেড়ে গেছিল হৃদস্পন্দন। সেই অবস্থাতেই তিনি এক মনে ডেকে গেছেন ঈশ্বরকে। চিকিৎসকদের হাতে অসহায় হৃতিককে দেখে তাঁর মনে হয়েছিল, তাঁর ছেলের যেন নতুন জন্ম হতে চলেছে।  

'সেরা বাবা হৃতিক', জন্মদিনে সেরা উপহার 'প্রাক্তন স্ত্রী' সুজানের

যদিও লোকাল অ্যানাস্থেশিয়া করে সেদিন অপারেশন হয়েছিল Hrithik Roshan-এর। তিনি সম্পূর্ণ সজাগ ছিলেন তাঁর অবস্থা সম্পর্কে। পিঙ্কির কথায় অপারেশনের পরে হাসতে হাসতে ওটি থেকে বেরিয়েছিলেন তাঁর দুগ্গু। যদিও অপারেশনের সময় তাঁর দিকে কড়া নজর ছিল ডাক্তারবাবুদের। ওই অবস্থাতেও মায়ের মন ভালো করতে হৃতিক নাকি চোখের ইশারাও করেছিলেন মাকে! হৃতিকের এই আত্মবিশ্বাসই তাঁকে আবার কাজের দুনিয়ায় ফিরিয়ে এনেছে, জন্মদিনে স্বীকার করেছেন পিঙ্কি। তাঁর কথায়, কী দিন গেছে সেদিন! তারপর সাত বছর কেটে গেছে। প্রতি জন্মদিনেই মনে পরে সেই ভীষণ দিনের কথা। মনে হয়, ২০১৩-য় হৃতিক আবার নতুন করে জন্মেছেন। ফিরে এসেছেন তাঁর কোলে। 


দেখুন সেই পোস্ট:


#Today I share these never before seen images with a heavy heart. However, it is not heavy with regret, sadness or concern. It is heavy from the immense love that flows through it, with each blood cell empowered by the immense gratitude I feel to be Duggu's mother. We set an example in the way we behave, we instil character in our children, support and encourage them, but what happens when their compassion, strength and courage outgrows that of the parent? What happens when everything you hoped to be, aspired for in terms of strength and inspiration is right before you in the eyes of your own son? Before Duggu was going for his brain surgery, I was almost fainting. Palpitations in my heart, blood pressure high, prayers on my tongue, I felt every inch of me was overwhelmed with a shadow of concern. Seeing my son so vulnerable physically in the hands of the doctors made him seem as helpless as a newborn and he was again those same beautiful eyes looking up at me just as the day he arrived in the world. The eyes had no fear, no worry, no stress. I saw my reflection in them and found his strength empowering me and my own being changing because of his courage and determination to beat this. There has never been a challenge Duggu hasn't faced head on and failed. His power of mind is his superpower and the beauty of it is that it inspires all around him too, giving us strength. As he saw the sadness in my eyes, he winked and as if by magic he made me smile. A warmth enveloped my entire being as if I was bathed in light. A smile and a wink was all it took for me to feel reassured, energised, inspired and confident that he would be OK. Look at these pictures and those eyes. Does this look the face of a man about to have major brain surgery? No, it looks like someone who has already conquered it. The small child I had carried for 9 months, given birth to and held in my arms was now cradling me in his and returning all the strength and love back to me and I gave him a million blessings in that moment.

A post shared by Pinkie Roshan (@pinkieroshan) on


হৃতিকের জন্মদিনের পোস্টও শেয়ার করেন:


#My dear Duggu, you are one of the noblest souls on the planet who never fails to stand up for what you believe in, see the best in others and better yourself. There is no finish line you cross because once completing a challenge you always look past it at the next milestone and push further, harder, higher. It is no wonder that so many look up to you and you have inspired millions to change their body and their mindset. You are an inspiration to me too and have brought so much to my life. On this day, I am grateful for you and the lessons YOU taught ME. I am in awe of your good heart and pray it never changes, only grows. I wish you everything and more. And I write this with a heavy heart.. heavy because it is full of love, gratitude and blessings for you. Thank you and happy birthday.

A post shared by Pinkie Roshan (@pinkieroshan) on


পরে হৃতিকের প্রাক্তন স্ত্রী সুজান খানও দুই ছেলের সঙ্গে হৃতিকের ছবি পোস্ট করে শুভেচ্ছা জানান জন্মদিনের.



হৃতিক রোশনকে শেষ দেখা গেছে অ্যাকশন থ্রিলার War-এ। পাইপলাইনে আছে Krrish 4 ।


বাংলা ভাষায় বিশ্বের সকল বিনোদনের আপডেটস তথা বাংলা সিনেমার খবর, বলিউডের খবর, হলিউডের খবর, সিনেমা রিভিউস, টেলিভিশনের খবর আর গসিপ জানতে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube
 
Advertisement
Advertisement
Listen to the latest songs, only on JioSaavn.com