হোমটিভি

‘দাদা’র সঙ্গে ফুচকা খেলেন 'মর্দানি' রানি, জয় করলেন City Of Joy

  | November 19, 2019 12:02 IST (কলকাতা)
Rani Mukherjee

'দাদাগিরি'র সেটে সুরভিত রানি

চোখে চশমা নেই। অসুবিধে হচ্ছিল দেখতে। নিজেই হাসির ঝলকে স্বীকার করেন, 'যতই মর্দানি করি, বয়স তো হচ্ছে!'

মর্দানি তাঁর শরীরে-সাজে নেই। মর্দানি তাঁর অভিনয়ে। বড় পর্দায়। ভক্তদের মনে। উজ্জ্বল উপস্থিতিতে। সাদা ঘেঁষা গোলাপি সিল্কের শাড়িতে চওড়া নেভি পাড়। তার সঙ্গে জরির বর্ডার। মানানসই এয়ারহোস্টেস ব্লাউজ। গয়নার আধিক্য প্রায় নেই-ই। কোমর ছাপানো চুল এখন পিঠ-ছোঁয়া, খোলা। কপালে ছোট্ট টিপ। হাল্কা মেকআপ। চোখ ঢাকা ওভারসাইজড রোদচশমায়। এই সাজেই তিনি এলেন, দেখলেন আর জয় করলেন। পাঁচ বছর পরে আবার বড় পর্দায় দেখা যাবে তাঁকে। 'মর্দানি ২'-এ পুলিশ অফিসার শিবাণী শিবাজি রায়ের ভূমিকায়। ছবির মুক্তি ১৩ ডিসেম্বর। তারই প্রচারে সোমবার কলকাতা ঘুরে গেলেন রানি মুখোপাধ্যায় (Rani Mukherjee)। এসেছিলেন জি বাংলার মেগা হিট রিয়্য়ালিটি শো 'দাদাগিরি'র সেটে। 'দাদা' সৌরভ গাঙ্গুলির সঙ্গে ছবি নিয়ে কথার ফাঁকে খেলায় অংশও নিলেন। সব সেরে কলকাতার রসগোল্লার বদলে দাদা আর প্রতিযোগিদের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে খেলেন ফুচকা! স্পেশ্যাল এই এপিসোড দেখা যাবে ৭ এবং ৮ ডিসেম্বর রাত সাড়ে ন-টায়। দাদাগিরি-র স্পেশ্যাল এপিসোডে। একমাত্র দাদার সঙ্গে গলা মিলিয়ে দিন ঘোষণার সময় হালকা চাপে পড়েছিলেন মর্দানি। চোখে চশমা নেই। অসুবিধে হচ্ছিল দেখতে। নিজেই হাসির ঝলকে স্বীকার করেন, 'যতই মর্দানি করি, বয়স তো হচ্ছে!'

2s76oa0g


'রাজা কি আয়েগি বারাত', 'গুলাম' থেকে 'কুছ কুছ হোতা হ্যায়' হয়ে 'সাথিয়া' বা 'হাম তুম', 'ব্ল্যাক', 'বান্টি ঔর বাবলি', 'মর্দানি', কিংবা সাম্প্রতিক 'হিঁচকি'--- সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে নিজেকে মিলিয়েছেন, মেলে ধরেছেন বড়পর্দায়। নানা রূপে তাঁর উপস্থিতি বলিউডে রানির রাজপাটকে আরও পোক্ত করেছে। তাই  ২০১৪-য় 'মর্দানি' রিলিজের পাঁচ বছর পরে আবার যখন সিক্যুয়েল নিয়ে ফিরছেন, 'রানি'-ভক্তরা কৌতূহলী হবেনই। 



99s0dt6


'দাদাগিরি'তে যদিও এই নিয়ে তিনবার এলেন রানি। এর আগে 'হিঁচকি'-র প্রচারেও এসেছিলেন। এবং 'ক্যুইন অফ হার্টস'-এর কথায় সেই ছবির সাফল্যের অনেকটাই রিয়েলিটি শো-এর মঞ্চে প্রচারের ফল। সোমবারও যখন তিনি শো-এ এলেন সঞ্চালক সৌরভ গাঙ্গুলি তাঁকে সাদরে বরণ করলেন পরমাত্মীয়ের মতোই। জানালেন, রানিকে নাকি দেখা যাবে ইডেন গার্ডেনে। বাংলাদেশ-ভারত টেস্ট খেলায়। রানিও যথারীতি সৌরভে মুগ্ধ আম বাঙালিনীর মতোই। ছবির ট্রেলার দেখার পাশাপাশি জানালেন, 'মর্দানি' যখন তৈরি হয়েছিল তখন সারা দেশ ফুটছে নির্ভয়া কাণ্ডে। সেই সময় রানি এবং যশরাজ ব্যানারের মনে হয়েছিল তাঁদেরও সমাজকে কিছু বার্তা দেওয়ার আছে। সেই ভাবনা থেকেই তৈরি 'মর্দানি'। এই ছবিতে নারীপাচারের মতো জ্বলন্ত বিষয় উঠে এসেছিল।এবার থাকছে ধর্ষণের মতো ঘৃণ্য ঘটনার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ। যা ইদানিং সমাজে আকছার ঘটছে। 'মর্দানি'র অসমসাহসী মহিলা পুলিশ অফিসার শিবাণী শিবাজি রায়ের লক্ষ্য তাই বিকৃতকাম ধর্ষকদের থেকে নারীর সম্মান রক্ষা। মেয়েদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। একই সঙ্গে মহিলা পুলিশ অফিসারদের কাজের স্বাধীনতা বাড়ানোর কথাও বলা হয়েছে এই ছবিতে। 

3hecme68


ছবির প্রচার মুখ্য হলেও 'দাদাগিরি'-তে এসে খেলায় অংশ নেবার লোভ সামলাতে পারলেন না মনেপ্রাণে বাঙালিনী রানি। হাসি-ঠাট্টার মধ্যেই প্রতিযোগীদের সাহায্য করে কিছুক্ষণ সময় কাটালেন। এবং দিনের সব থেকে বড় চমক, দাদা আর প্রতিযোগীদের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে ফুচকা খেলেন। সঙ্গে জানাতে ভুললেন না, মেয়ে আদিরা কলকাতার রলগোল্লার ফ্যান। তাই মা কলকাতা যাচ্ছে শুনেই তার বায়না, রসগোল্লা আর সন্দেশ নিয়ে আসতেই হবে। 



বাংলা ভাষায় বিশ্বের সকল বিনোদনের আপডেটস তথা বাংলা সিনেমার খবর, বলিউডের খবর, হলিউডের খবর, সিনেমা রিভিউস, টেলিভিশনের খবর আর গসিপ জানতে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube
Advertisement
Advertisement